বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ, শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা

স্বাস্থ্য

[ad_1]

ময়মনসিংহে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের অভিযোগে এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। মঙ্গলবার বিকেলে ময়মনসিংহের কোতোয়ালি থানায় মামলা করেন এক শিক্ষিকা।

অভিযুক্ত আবু সাঈদ সদর উপজেলার দীঘারকান্দা কাদুর বাড়ী গ্রামের বাসিন্দা। তিনি দীঘারকান্দা আদর্শ মডেল স্কুলের পরিচালক ও শিক্ষক। ভুক্তভোগী প্রেমিকা ওই স্কুলে শিক্ষকতা করেন।

কোতোয়ালী মডেল থানার ওসি ফিরোজ তালুকদার বলেন, মঙ্গলবার প্রেমিকা বাদী হয়ে ধর্ষণ মামলা করেছেন। আবু সাঈদকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, সদর উপজেলার ভাটি বাড়েরার পাড় ঘাগড়া গ্রামের এক নারী শিক্ষিকার সাথে আদর্শ মডেল স্কুলের পরিচালক আবু সাঈদের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। বিয়ের আশ্বাসে দীর্ঘ পাঁচ বছর প্রেম করার সময় আবু সাঈদ বিভিন্ন জায়গায় নিয়ে শিক্ষিকাকে ধর্ষণ করেন। আবু সাঈদ ও শিক্ষিকার প্রেমের বিষয়টি বিষয়টি পারিবারিক ও সামাজিক ভাবে জানাজানি হয়।

সম্প্রতি অন্য একজন মেয়ের প্রেমে পড়ে আবু সাঈদ তাকে প্রত্যাখান করেন। পরে ওই শিক্ষিকা বিয়ের দাবিতে সাঈদের বাড়িতে কয়েক দফা অবস্থান করেন। এমন অবস্থায় গত দুই মাস ধরে বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছেন শিক্ষক আবু সাঈদ।

এ বিষয়ে ভুক্তভোগীর মা বলেন, আমার মেয়েকে আবু সাঈদ বিয়ে করবে বলে কথাবার্তা সব ঠিকঠাক ছিল। গত রোজার ঈদে আমি তাদের বাড়িতে ইফতার পাঠিয়ে দাওয়াত দিয়েছি। তারাও আমার মেয়েকে শাড়ি-কাপড় কিনে দিয়েছে। এর মধ্যেই করোনা আসলো। করোনা অজুহাতে ৫/৬ মাস দেরি করছে। এখন সে বিয়ে করবে না বলে বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে। আমার মেয়ে যদি আত্মহত্যা করে বা কোন কিছু হয়। আমি তাকে ছাড়ব না।

বাংলাদেশ জার্নাল/আর



[ad_2]

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *