পুনঃসংযোগের একদিন পরই চেরনোবিলে বিদ্যুৎবিভ্রাট

স্বাস্থ্য


বিদ্যুৎবিভ্রাটের পর স্থানীয় সময় গত রোববার ইউক্রেনের চেরনোবিল পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে বাইরে থেকে বিদ্যুতের সংযোগ দেয়া হয়েছিল। একদিন পরই সেটি আবার ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানা গেছে।

আবারো বিদ্যুৎবিভ্রাটের পর ডিজেলচালিত জেনারেটর ব্যবহার করে কেন্দ্রটিতে বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হচ্ছে বলে স্থানীয় সময় গতকাল সোমবার ইউক্রেনের রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন গ্রিড অপারেটরটির পক্ষ জানানো হয়।

একই কারণে পার্শ্ববর্তী শহর স্লাভ্যুটিচ পুরোপুরি বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়ে বলে দেশটির রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে দেয়া বক্তব্যে জানান গ্রিড অপারেটরটির প্রধান ভলোদিমির কুদরস্কি ।

এর আগে ৯ মার্চ চেরনোবিল পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রটিতে বিদ্যুতের সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। তখন ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্র কুলেবা বিদ্যুৎ সরবরাহ লাইন সংস্কারের জন্য জরুরি ভিত্তিতে সাময়িক যুদ্ধবিরতি ঘোষণা করতে রাশিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়েছিলেন।

ওইসময় বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন থাকলে কেন্দ্রটি থেকে তেজস্ক্রিয়তা ছড়াতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেন তিনি।

এরপর রোববার বিদ্যুৎকেন্দ্রটিতে আবার বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হয়েছিল।

ইউক্রেনের জ্বালানিমন্ত্রী বলেন, জ্বালানিবিষয়ক প্রকৌশলীরা নিজেদের জীবন ও স্বাস্থ্যের ঝুঁকি নিয়েই পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রটির নিরাপত্তা নিশ্চিত করেছেন।

এছাড়াও এনডিটিভির প্রতিবেদন অনুযায়ী, গতকাল গ্রিড অপারেটরটি জানায়, বিদ্যুৎ সরবরাহ পুরোপুরি সচল হওয়ার আগেই লাইনটি আবার ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এটি সংস্কারের জন্য কাজ চলছে।

১৯৮৬ সালের বিপর্যয়ের পর থেকে নিষ্ক্রিয় অবস্থায় আছে চেরনোবিল বিদ্যুৎকেন্দ্রটি। গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে রাশিয়া সামরিক অভিযান শুরু করে। অভিযান শুরুর পরপরই রুশ বাহিনী কেন্দ্রটির দখল নেয়।

বাংলাদেশ জার্নাল/পিএল